ময়মনসিংহে পুলিশের হস্তক্ষেপে তালা খোলেছে সেই মাদ্রাসার

ষ্টাফ করেসপন্ডেন্ট, ময়মনসিংহ ১০ জুন :
আন্তকলহের জেরধরে ময়মনসিংহ সদর উপজেলার ঘাগড়া ইউনিয়নের তালাবদ্ধ করা মাদ্রাসা “মাদ্রাসায়ে আবু বকর মোমেনশাহী” কোতুয়ালী মডেল থানা পুলিশের হস্তক্ষেপে অবশেষে খুলে দেয়া হয়েছে।

সোমবার (১০ জুন) রাতে থানায় দু-পক্ষের সাথে কথা বলে আপোষ সিমাংশায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। কোতুয়ালী সদর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আল আমিন এর নির্দেশনায় ইন্সপেক্টর (অপারেশন) খন্দকার শাকের আহমেদ ও তদন্তকারী এস.আই মাহবুব অর রশিদ এর সার্বিক দায়িত্বশীলতায় এটি সম্ভব হয়েছে।

জানা যায়, গত ৩ জুন মাদ্রাসা কমিটির সাধারণ সম্পাদক আতাউর রহমান একক সিদ্ধান্তে তালাবদ্ধ করেন মাদ্রাসাটি। এ বিষয়ে প্রিন্সিপাল আনোয়ার হোসেন বাদি হয়ে থানায় অভিযোগের প্রেক্ষিতে ব্রেকিংনিউজ ডটকম ডটবিডিসহ দেশের একাধিক বিভিন্ন মিডিয়ায় সংবাদ প্রকাশিত হয়। অভিযোগ তদন্তকারী কর্মকর্তা মাহবুব দ্রুত ঘটনাস্থলে গিয়ে দু-পক্ষকে থানায় আসার নির্দেশ প্রদান করেন।

পরে সোমবার রাতে ইন্সপেক্টর (অপারেশন) খন্দকার শাকের আহমেদসহ পুলিশ কর্মকর্তারা প্রায় ৩ ঘন্টাব্যাপী মাদ্রাসা কমিটি ও প্রিন্সিপালসহ এলাকার মুরব্বিদের সকল অভিযোগ শুনেন। অবশেষে মাদ্রাসা কমিটির সাধারণ সম্পাদক আতাউর রহমানসহ সকলের স্বাক্ষরে ভবিষ্যতে কোনোরূপ অচলাবস্থা তৈরি ছাড়াই প্রতিষ্ঠানটির সচল রাখার অঙ্গিকারমূলে বিষয়টি সমাধান হয়।

পরে সর্বসম্মতিক্রমে আজ থেকে মাদ্রাসার তালা খুলে শিশু শিক্ষার্থীদের শিক্ষাদান কার্যক্রম চালু রাখার ব্যবস্থা করা হয়। এ ঘটনায় জনমনে ব্যাপক প্রশংসা পেয়েছে কোতোয়ালী থানা পুলিশের ভূমিকায়। আইনের শাসনই নয় সামাজিকতাও পুলিশিং ভূমিকা রাখা যায় তা আবারও প্রমান করেছেন ইন্সপেক্টর শাকের।