বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের ঢাকা- দিল্লি ফ্লাইট চালু

Biman Bangladesh 787 at Boeing Field

রাজস্ব আয়ের লক্ষ্যে পাঁচ বছর পর আগামী মাস থেকে পুনরায় ঢাকা-দিল্লি ফ্লাইট চালু করছে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনস। এতদিন এই দুই রাজধানীর মধ্যে ভারতের বেসরকারি বিমান প্রতিষ্ঠান জেট এয়ারওয়েজ ফ্লাইট পরিচালনা করত। ইতোমধ্যে জেট এয়ারওয়েজ দু’দেশের রাজধানীর মধ্যে বিমান চলাচল বন্ধ করে দিয়েছে। খবর বাসসের।

রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন একমাত্র এয়ারলাইন্স প্রতিষ্ঠানটির অপারেশন ম্যানেজার মোহাম্মদ জাহিদুল ইসলাম বলেন, আমরা ১৩ মে থেকে দিল্লির পথে বিমান ফ্লাইট চালু করতে যাচ্ছি, যা গত ২০১৪ সালে বন্ধ করে দেওয়া হয়েছিল। এয়ারক্রাফ্ট স্বল্পতার কারণে ২০১৪ সালের সেপ্টেম্বরে দিল্লির পথে ফ্লাইট বন্ধ করে দেওয়া হলেও বাণিজ্যিক কারণে এটি পুনরায় চালু করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হচ্ছে।

জাহিদুল ইসলাম আরও বলেন, আমরা আমাদের ফ্লাইটগুলোতে বিপুল পরিমাণ যাত্রী আশা করছি, কারণ চিকিৎসাসহ বিভিন্ন পেশাগত কারণে বিপুল সংখ্যক মানুষ নিয়মিত এ পথে যাতায়াত করে থাকে।

আগামী সপ্তাহের শেষ নাগাদ বিমান দিল্লি পথে ফ্লাইট চলাচলের অনুমতি পাবে এবং সপ্তাহে তিনটি ফ্লাইট পরিচালনা করবে। সপ্তাহের সোমবার, বৃহস্পতিবার এবং শনিবার ১ শ’ ৬২ আসনের বোয়িং ৭৩৭-৮০০ ফ্লাইট পরিচালনা করবে বলে জানান তিনি।

বিমানের জনসংযোগ কর্মকর্তা বাসস’কে বলেন, কিছুদিন পর আমরা এ পথে সপ্তাহে চারদিন ফ্লাইট পরিচালনা করবো। ফ্লাইট সূচি অনুযায়ী বিমান ঢাকা থেকে বিকেল ৩ টায় রওনা হয়ে দিল্লিতে ৫ টা ২০ মিনিটে পৌঁছবে। অপর দিকে দিল্লি থেকে ৬ টা ২০ মিনিটে ছেড়ে ৯ টা ২০ মিনিটে ঢাকায় এসে পৌঁছবে।

বিমান কর্মকর্তারা জানান, ঢাকা-দিল্লি পথে ইকোনমিক ক্লাস ২৫ হাজার এবং বিজনেস ক্লাস ৬৫ হাজার টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে যা তুলনামূলকভাবে এ পথে একমাত্র ফ্লাইট পরিচালনাকারী ভারতীয় বেসরকারি এয়ারলাইন্স প্রতিষ্ঠান জেট এয়ার ওয়েজের চেয়ে অনেক কম।

এয়ার ইন্ডিয়া, স্পাইস জেট এবং ইন্ডিগো কোলকাতা হয়ে ঢাকা-দিল্লি ফ্লাইট পরিচালনা করছে।