শরীয়তপুর সদর ও পৌরসভা স্বেচ্ছাসেবকলীগের ব্যতিক্রম উদ্যোগ

রুপক চক্রবর্তী শরীয়তপুর :
নভেল করোনা ভাইরাস যার সংক্ষিপ্ত নাম কোভিট-১৯। এই নামটি বর্তমানে সারাবিশ্বে অতিব পরিচিত একটি নাম। বর্তমানে সারাবিশ্ব মহামারী করোনা ভাইরাসের আক্রমণে আক্রান্ত। এ ভাইরাসের ভয়াস গ্রাসে ধমকে গিয়েছে গোটা বিশ্ব। এ ভাইরাসের আক্রমণ হতে বাংলাদেশও বাদ পরে নি। তারই ধারাবাহিকতায় শরীয়তপুর জেলা সহ সারা দেশে করোনা ভাইরাস আতঙ্ক বিরাজ করছে। এ ভাইরাসের আক্রমণ হতে জনগণকে বাচতে হলে ঘরে অবস্থান করতে হবে। জনগনকে সচেতন হতে হবে। জনগণ কে সচেতন করার লক্ষ্যে এক ভিন্ন ধর্মী ব্যতিক্রম উদ্যোগ গ্রহন করেছেন বাংলাদেশ
আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবকলীগ শরীয়তপুর সদর উপজেলা ও শরীয়তপুর সদর পৌরসভা শাখার নেতৃবৃন্দ। তারা জনগনকে সচেতন করতে শরীয়তপুর শহরের প্রধান সড়কে সচেতনতামূলক চিত্রাঙ্কনের ব্যবস্থা করেছেন।

শরীয়তপুর সদর উপজেলা আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবকলীগের ও শরীয়তপুর সদর পৌরসভা
আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবকলীগের যৌথ উদ্যোগে
শুক্রবার (১৭ই এপ্রিল) বিকাল হতে গভীর রাত পর্যন্ত শরীয়তপুর শহরের প্রানকেন্দ্র শরীয়তপুর-ঢাকা মহাসড়কের শরীয়তপুর শহরস্ত চৌরঙ্গী মোড় এবং শরীয়তপুর সদর হাসপাতালের সামনের
কালো বিটুমিনের উপরে সাদা রং এর সাহায্য তুলির আঁচড়ে করোনা ভাইরাসের প্রতিকী চিত্র এবং আর পাশে “ঘরে থাকুন, সুস্থ থাকুন” স্লোগান লিখে করোনা ভাইরাস মোকাবেলায় জনগণকে সচেতন করার জন্য এ চিত্রাঙ্কন করা হয়। এসময় তারা সদর হাসপাতালের সামনে সড়কে যে গতিরোধক রয়েছে তার দুই পাশে সাদা রং এর বডার দিয়ে দেয় যাতে রাতের বেলা গাড়ি চলাচলে কোন দূর্ঘটনা না হয়।

এসময় উক্ত কার্যক্রমে শরীয়তপুর সদর উপজেলা আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক শরীয়তপুর ইসলাম বাবু ও শরীয়তপুর পৌরসভা আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক মাওলাদ হোসেন রিপনের উদ্যোগে এবং সার্বিক তত্তাবধানে উক্ত কার্যক্রমে উপস্থিত থেকে সহযোগিতা করেন সদর উপজেলা আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের সহ-সভাপতি মিজানুর রহমান মিজান, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল রহমান সুমন খান, প্রচার সম্পাদক মামুন খান, শরীয়তপুর পৌরসভার যুবলীগের উপ-দপ্তর সম্পাদক পিএম সুমন ও শরীয়তপুর জেলা ছাত্রলীগের রাজন সহ প্রমুখ।

শরীয়তপুর সদর উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সাধারণ সম্পাদক শরিফুল ইসলাম বাবু বলেন,
১৯৭১ সালে মহান মুক্তিযুদ্ধের সময় ঝাঁপিয়ে পড়েছিল বীর মুক্তি সেনারা, আমরা মুক্তিযুদ্ধ দেখিনি আমরা আজ অদৃশ্য করোনার বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষনা করেছি। ইতিমধ্যেই আপনারা জানেন শরীয়তপুর-১ আসনের মাননীয় সংসদ সদস্য ইকবাল হোসেন অপু ভাইয়ের নির্দেশক্রমে আমরা বিভিন্ন ইউনিয়নে মাইকিং করেছি, লিফলেট বিতরণ করেছি, বাজার নিয়ে অসহায়, দরিদ্র ও কর্মহীন মানুষের পাশে ত্রাণ সামগ্রী নিয়ে বাড়ি বাড়ি পৌঁছে দিয়ে এসেছি। সদর উপজেলার বিভিন্ন স্থানে জীবাণুনাশক স্প্রে করেছি। তারই ধারাবাহিকতায় মানুষকে জনসচেতনতা বৃদ্ধি করতে আমরা যেসব জনবহুল স্থান রয়েছে সেসব জনবহুল স্থানে এই চিত্র লেখার মাধ্যমে মানুষকে সচেতনতা তৈরি করতে চাই এবং মানুষকে ঘরে থাকতে উৎসাহিত করতে চাই যাতে করে এই করোনা মহামারী থেকে দেশ ও দেশের মানুষকে রক্ষা করতে পারি।আমাদের এই জনসচেতনতা ও ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ সহ সকল কর্মকান্ড করোনা নিষ্ক্রিয় না হওয়া পর্যন্ত আমরা আমাদের কর্মকাণ্ড অব্যাহত থাকবে।

ইনশাআল্লাহ আল্লাহর অশেষ রহমতে ও জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে এবং শরীয়তপুর-১ আসনের মাননীয় সংসদ সদস্য ইকবাল হোসেন অপুর নির্দেশক্রমে আমরা শরীয়তপুর সদর উপজেলা আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগ সর্বদা মানবতার সেবায় মানুষের জন্য কাজ করে যেতে চাই।