রাশিয়া ছাড়া বিশ্বে কারও কাছে এই অস্ত্র নেই : পুতিন

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : রাশিয়া ‘সারমাত’ নামে নতুন একটি আন্তঃমহাদেশীয় ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা চালিয়েছে। বিশ্বের আধুনিক কোনো প্রতিরক্ষা ব্যবস্থাই এই ক্ষেপণাস্ত্র আটকাতে পারবে না বলে দাবি করেছে মস্কো। খবর রয়টার্সের

রুশ সংবাদমাধ্যম আরটি জানিয়েছে, বুধবার (২০ এপ্রিল) ক্ষেপণাস্ত্রটি দেশের উত্তরপশ্চিমাঞ্চলীয় প্লেসেৎস্ক থেকে উৎক্ষেপণ করা হয়েছে এবং সেটি দূরপ্রাচ্যের কামচাটকা উপদ্বীপের লক্ষ্যবস্তুতে সফলভাবে আঘাত হেনেছে।

রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন বলেন, ‘সারমাত’ ক্ষেপণাস্ত্রের সর্বোচ্চ কৌশলগত এবং প্রযুক্তিগত সক্ষমতা রয়েছে। এটি ক্ষেপণাস্ত্র-প্রতিরোধী সব ধরনের প্রতিরক্ষা ব্যবস্থাকে ফাঁকি দিয়ে লক্ষ্যে আঘাত হানতে পারে। বিশ্বে দ্বিতীয় কারও কাছে এই অস্ত্র নেই এবং দীর্ঘ সময় পর্যন্ত আসারও সম্ভাবনা নেই।

তিনি বলেন, অনন্য এই অস্ত্রটি আমাদের সশস্ত্র বাহিনীর যুদ্ধের সক্ষমতাকে আরও শক্তিশালী, বাইরের হুমকি থেকে রাশিয়ার নিরাপত্তা নিশ্চিত এবং যারা উন্মত্ত আক্রমণাত্মক বক্তব্যের মাধ্যমে আমাদেরকে হুমকি দেওয়ার চেষ্টা করছেন, তাদের জন্য এটা চিন্তার কারণ হতে পারে।

মার্কিন কংগ্রেশনাল রিসার্চ সার্ভিসের তথ্য অনুযায়ী, রাশিয়ার নতুন ভারী আন্তঃমহাদেশীয় ক্ষেপণাস্ত্র সারমাত একসঙ্গে ১০ কিংবা তারও অধিক ওয়ারহেড বহনে সক্ষম। গত কয়েক বছর ধরে রাশিয়া এই অস্ত্র তৈরির প্রক্রিয়া অব্যাহত রেখেছে।

রাশিয়ার সামরিক বাহিনীতে আর-৩৬এম আর-৩৬এম২ ভোভোদা আন্তঃমহাদেশীয় ক্ষেপণাস্ত্রের বিকল্প হিসেবে সাইলো-ভিত্তিক নতুন কৌশলগত ক্ষেপণাস্ত্র সারমাত সংযোজন করা হচ্ছে। এই ক্ষেপণাস্ত্রটি অধিক অস্ত্রের পাশাপাশি, হাইপারসনিক গ্লাইডার ইউনিটসহ নতুন ধরনের ওয়ারহেড বহন করতে পারে।