ময়মনসিংহে বাস-সিএনজি সংঘর্ষে নিহত ৭

মাসুদ রানা, ময়মনসিংহ ৮ আগস্ট :
ময়মনসিংহের মুক্তাগাছা উপজেলায় যাত্রীবাহী বাস ও সিএনজি চালিত অটোরিকশার মুখোমুখি সংঘর্ষে একই পরিবারের ৩ জনসহ ৭ জন নিহত হয়েছে। এদের মধ্যে ২ নারী ও ৫ জন পুরুষ রয়েছে। তবে এ ঘটনায় আহত হওয়ার কোন খবর পাওয়া যায়নি। এদিকে খবর পেয়ে পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিস ঘটনাস্থলে গিয়ে দূর্ঘটনাকবলিত সিএনজি-বাস ও ৭ টি মরদেহ উদ্ধার করে থানা হেফাজতে নিয়েছে। ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছে মুক্তাগাছা থানার ওসি বিপ্লব কুমার বিশ্বাস।

শনিবার (৮ আগস্ট) বিকেলে উপজেলার মানকোন এলাকার ময়মনসিংহ-জামালপুল আঞ্চলিক মহাসড়কে এ দূর্ঘটনা ঘটে। হতাহতরা সবাই সিএনজির যাত্রী বলে জানিয়েছে পুলিশ। একই পরিবারের নিহতরা হলেন, বাবা নূর ইসলাম (৩০), স্ত্রী তাসলিমা (২৬) ও কন্যা লিজা আক্তার (১৩), অন্যরা হলেন, রুকন মিয়া (৩৮), নজরুল ইসলাম (৩৫), চালক আসাদুল হক (৪৫) ও অজ্ঞাত। তাদের মধ্যে ৩ জন জামালপুরের ও ৩ জন টাঙ্গাঈলের এবং একজন ময়মনসিংহের বলে জানা গেছে।

মুক্তাগাছা ফায়ার সার্ভিসেরর লিডার খলিলুর রহমান বলেন, যাত্রী নিয়ে আসা সিএনজিটিকে জামালপুরগামী রাজীব পরিবহনের খালি বাস উল্টো সাইটে গিয়ে সিএনজির সাথে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলেই ওই ৭ জন নিহত হয়। বিকেল সাড়ে ৪ টায় তিনি এ দূর্ঘনার খবর পান। পরে ফায়ার সার্ভিস ও পুলিশ যৌথভাবে ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশ ও দূর্ঘটনাকবলিত গাড়ী দুটি উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। বাসের ড্রাইভার ও বাসটিকে আটক করেছে পুলিশ।