ময়মনসিংহে ছেলের হাতে মা খুন!

ষ্টাফ করেসপন্ডেন্ট, ময়মনসিংহ ২২ আগস্ট :
ময়মনসিংহের মুক্তাগাছা উপজেলার পৌর এলাকায় দা দিয়ে এলোপাথারি কুপিয়ে নিজের মা’কে হত্যা করেছে পাষন্ড ছেলে। এ ঘটনায় পুলিশ ঘাতক ছেলেকে আটক করেছে বলে জানা গেছে।

বৃহস্পতিবার (২২ আগস্ট) দুপুরে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা নেওয়ার তিনি মারা যান। এরআগে গত বুধবার (২১ আগস্ট) সকালে উপজেলার পৌশহরের ঈশ্বরগ্রামে হত্যাকাণ্ডের এ ঘটনা ঘটে। নিহত রোকিয়া বেগম (৬৫) ওই এলাকার আবুল কালামের স্ত্রী বলে জানা গেছে।

স্থানীয়রা জানান, আবুল কালামের তিন ছেলের মধ্যে মেজ ছেলে রুবেল (২৮) মাদকাসক্ত। সম্প্রতি রুবেল নেশায় বেশি আসক্ত হয়ে পড়েন। বুধবার সকালে রুবেল তার মা রোকেয়া বেগমকে পেছন থেকে দা দিয়ে মাথা ও ঘাড়ে এলোপাথারি কুপিয়ে গুরতর আহত করেন। পরে স্বজনরা তাকে উদ্ধার করে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ (মমেক) হাসপাতালে নিয়ে ভর্তি করেন। আজ বৃহস্পতিবার রোকেয়ার অবস্থার অবনতি হলে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় নেওয়ার পথে দুপুরে তিনি মৃত্যুবরন করেন। তবে কি কারনে নিজের মা’কে এমন ভাবে কুপিয়েছে তা কেউ বলতে পারেনি।

মুক্তাগাছা থানার ওসি মোহাম্মদ আলী মাহমুদ জানান, গত বুধবার সকালে দিকে মুক্তাগাছা পৌর শহরের ঈশ্বরগ্রামে নিজের মা’কে দা দিয়ে কুপিয়ে গুরতর আহত করে তার বখাটে ছেলে রুবেল। পরে স্থানীয়রা তাকে মমেক হাসপাতালে নিয়ে ভর্তি করেন। আজ দুপুরে অবস্থার অবনতি হলে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় নেওয়ার পথে তিনি মারা যান। হত্যার খবর পেয়ে রুবেলকে আটক করেছে পুলিশ। এ ঘটনায় থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে বলেও জানিয়েছেন এই কর্মকর্তা।