মেয়ের জন্মদিনের খরচে ১৫০ পরিবারকে খাবার দিলেন বিশ্বববিদ্যালয় শিক্ষক

এইচ. এম. জেবায়ের হেসেন :
ইচ্ছা ছিল একমাত্র মেয়ের প্রথম জন্মদিনের অনুষ্ঠানটি পরিবারের ও আত্মীয় স্বজনদের নিয়ে অনেক বড় পরিসরে করবেন। সে লক্ষ্যেই বেশ কিছু টাকাও জমিয়ে রেখেছিলেন ময়মনসিংহের ত্রিশালে অবস্থিত জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী অধ্যাপক রেজুয়ান আহমেদ শুভ্র। করোনাভাইরাসের প্রভাবে এখন পুরো দেশ লকডাউন হওয়ায় বিপাকে পড়েছে দুঃস্থ, অসহায় ও নিম্ন আয়ের মানুষেরা। এই
অবস্থায় মেয়ের জন্মদিনের অনুষ্ঠান পালনের জন্য জমানো দেড় লাখ টাকা
শুক্রবার ও শনিবার এ দু’দিনে নিজ জেলা কিশোরগঞ্জ সদরের হারুয়া
এলাকায়, কিশোরগঞ্জের করিমগঞ্জ থানা, নেত্রকোনা সদরের নওয়াপাড়া
এলাকায়, মধুপুর থানার দুঃস্থ, অসহায় ও নিম্ন আয়ের ১৫০ হতদরিদ্র
পরিবারকে ১০ দিনের খাদ্য সামগ্রী দিয়েছেন। খাদ্য সামগ্রীর মধ্যে
ছিল ১০ কেজি চাল, ১ কেজি ডাল, ১ কেজি লবন, ১ লিটার সয়াবিন তেল, ১ কেজি চিড়া, ২ কেজি আলু ও ১টি সাবান।
এছাড়াও, তিনি শুক্রবার রাতে নিম্ন আয়েরপরিবারের বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীদের সহযোগিতা করার লক্ষ্যে নিজের ফেসবুকে একটি
স্ট্যাটাস দিয়েছেন।স্ট্যাটাসটি হুবহু তুলে ধরা হলো-
‘আমার এইচআরএম বিভাগের কোনো ছাত্র-ছাত্রীর পরিবার যদি নিম্ন
আয়ের হয় এবং যাদের পরিবারের উপার্জনক্ষম ব্যক্তিটি এই লকডাউনের
সময় কর্মহীন, তারা আমার সাথে যোগাযোগ করবেন। তাদের পরিচয় গোপন রাখা হবে। আমার সীমিত সামর্থের মাঝে চেষ্টা করবো তাদের সহযোগিতা করতে।
বিঃ দ্রঃ এটা কোনো দান না, যারা সহযোগিতা নিবেন, পড়াশোনা শেষ করে চাকরি পাবার পর আমাকে ফেরত দেবেন। সুতরাং এই সহযোগিতা গ্রহণে কোনরকম হীনমন্যতায় ভুগবেন না।’