মানববন্ধন ও বিক্ষোভ ফুলপুরে, রায়হান হত্যাকারীদের ফাঁসির দাবিতে।

ময়মনসিংহের ফুলপুরে কলেজ ছাত্র রায়হান মোস্তাকিম হত্যাকারীদের ফাঁসির দাবীতে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ করেছে শিক্ষার্থী ও এলাকাবাসী।

5
মানববন্ধন ও বিক্ষোভ

মোঃ খলিলুর রহমান, বিশেষ প্রতিনিধিঃ
ময়মনসিংহের ফুলপুরে কলেজ ছাত্র রায়হান মোস্তাকিম হত্যাকারীদের ফাঁসির দাবীতে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ করেছে শিক্ষার্থী ও এলাকাবাসী। মঙ্গলবার সকালে ফুলপুর সরকারি ডিগ্রি কলেজের শিক্ষার্থী ও এলাকাবাসীর ব্যানারে কলেজ গেইটের সামনে এই মানববন্ধন ও বিক্ষোভ অনুষ্ঠিত হয়।

মানববন্ধন শেষে একটি বিক্ষোভ মিছিল প্রদান সড়ক প্রদক্ষিণ করে বাসস্ট্যান্ডে শেরপুর রোড গোল চত্বরে এসে অবস্থান নিয়ে ফুলপুর সরকারি ডিগ্রি কলেজের ছাত্র রায়হান মোস্তাকিম হত্যাকারীদের ফাঁসির দাবী তুলে সংক্ষিপ্ত বক্তব্য রাখেন, কলেজছাত্র সংগ্রাম, হুমায়ুন কবির সবুজ, রায়হানের নানী কমলা খাতুন, ছোটভাই আরাফাত প্রমুখ। এসময় উপস্থিত ছিলেন, রায়হানের নানী ফরিদা, খালা মাহমুদা, ভাই মিজানুর রহমান, সোহাগ, কলেজছাত্র সাদেক, মোস্তাকীম, নাঈম, নোমান, বক্কর, পলাশ, মেরাজুল, টিটু, অনিক হাসান হৃদয়, সাকিব, রায়হান, কলেজছাত্রী তারিন, লিজা, সালমা, সাবিনা, তানিয়া প্রমুখ।

সংঘর্ষের ঘটনা:
উল্লেখ্য, ফুলপুর উপজেলার রহিমগঞ্জ ইউনিয়নের পারতলা গ্রামে শুক্রবার বিকালে পারতলা বাজারে একই বাড়ির মোরশেদের ছেলে তাসকিনের (৭) পায়ের উপর বাইসাইকেল উঠিয়ে দেয় জিন্নতের ছেলে আরাফাত(১০)। পরদিন শনিবার দুপুরে এ নিয়ে বাড়িতে মহিলাদের মাঝে কথা কাটাকাটি ও ঝগড়া হয়। পরে বিষয়টি পুরুষদের মাঝে গড়ায় এবং তুমুল ঝগড়া ও মারামারি হয। এসময় দুপক্ষের সংঘর্ষের ঘটনায় রায়হান মিয়া, রমজান, নাজমুল ও ইসলাম গুরুতর আহত হন । গুরুতর অবস্থায় ফুলপুর সরকারি কলেজের ছাত্র রায়হান মোস্তাকিমকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল থেকে ঢাকায় রেফার্ড করলে ঢাকায় নিয়ে যাওয়ার সময় শনিবার দিবাগত রাত সোয়া ১২টার দিকে সে মারা যায়। এ ঘটনায় ফুলপুর থানায় মামলা দায়ের হয়েছে।

ফুলপুর উপজেলার রহিমগঞ্জ ইউনিয়নের পারতলা গ্রামে শুক্রবার বিকালে পারতলা বাজারে একই বাড়ির মোরশেদের ছেলে তাসকিনের (৭) পায়ের উপর বাইসাইকেল উঠিয়ে দেয় জিন্নতের ছেলে আরাফাত(১০)। পরদিন শনিবার দুপুরে এ নিয়ে বাড়িতে মহিলাদের মাঝে কথা কাটাকাটি ও ঝগড়া হয়। পরে বিষয়টি পুরুষদের মাঝে গড়ায় এবং তুমুল ঝগড়া ও মারামারি হয। এসময় দুপক্ষের সংঘর্ষের ঘটনায় রায়হান মিয়া, রমজান, নাজমুল ও ইসলাম গুরুতর আহত হন । গুরুতর অবস্থায় ফুলপুর সরকারি কলেজের ছাত্র রায়হান মোস্তাকিমকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল থেকে ঢাকায় রেফার্ড করলে ঢাকায় নিয়ে যাওয়ার সময় শনিবার দিবাগত রাত সোয়া ১২টার দিকে সে মারা যায়। এ ঘটনায় ফুলপুর থানায় মামলা দায়ের হয়েছে।