ভৈরব নদে কুমিরের ‘রৌদ্রস্নান’, সতর্ক থাকার আহ্বান

যশোরের নওয়াপাড়া বন্দর এলাকায় দেখা মিলেছে বিশাল আকৃতির কুমিরের। আট-দশ দিন ধরেই ভৈরব নদের ফেরিঘাট এলাকায় বিশাল আকৃতির এসব কুমির দেখা যাচ্ছে বলে জানিয়েছেন স্থানীয়রা।

বুধবার (৩০ নভেম্বর) দুপুর সাড়ে ৩টার দিকে ভৈরব নদের ফেরিঘাট এলাকায় কুমির দেখতে স্থানীয়রা ভিড় করেন।

এসময় স্থানীয়রা জানান, কুদ্দুস নামের এক শ্রমিক প্রথম কুমিরটিকে দেখতে পান। পরে অন্যরা সেখানে আসেন। তাদের মধ্যে মধ্যপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষিকা লাবণ্য সাহা কুমিরের রোদ পোহানোর ভিডিও ও ছবি ফোনে ধারণ করে ফেসবুকে পোস্ট করেন। এরপর সেই ভিডিও মুর্হূতেই ছড়িয়ে পড়ে। ভিডিও দেখে নদীর পাড়ে হাজার হাজার মানুষ কুমিরটি দেখতে ভিড় করেন।

লাবণ্য সাহা বলেন, বিকাল সাড়ে ৪টার পর কুমিরটি আবার নদীতে চলে যায়। এর আগে কুমিরটি পাড়ে চরের উপর শুয়ে রোদ পোহাচ্ছিল। কুমিরটিকে দূর থেকে দেখে অনেক বড় মনে হয়েছে।

অভয়নগর উপজেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা ডা. আবুজার সিদ্দিকী বলেন, স্থানীদের কাছ থেকে জেনেছি গত মঙ্গলবারও তিনটি কুমির দেখা গিয়েছিল এ নদীর পাড়ে। বুধবার বিকালে একটা কুমির একই স্থানে ডাঙ্গায় উঠে রোদ পোহাচ্ছিল। প্রাথমিক ভাবে ধারণা করা হচ্ছে, এটা সুন্দরবন এলাকার মিঠাপানির কুমির। খাদ্য সংকটের কারণে এ এলাকায় চলে আসতে পারে।

এসময় তিনি সবাইকে সতর্ক থাকতে বলেন। একই সঙ্গে নদীতে গোসল করা থেকে বিরত থাকার আহ্বান জানিয়েছেন।