ফুলপুরে মুজিববর্ষ উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রীর উপহার পাকা ঘর পাচ্ছে ৯৭ পরিবার

মোঃ খলিলুর রহমান, বিশেষ প্রতিনিধি:
“আশ্রয়ণের অধিকার শেখ হাসিনার উপহার” এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী মুজিববর্ষ উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রীর আশ্রয়ণ-২ প্রকল্পের আওতায় সারাদেশে ভূমিহীন ও গৃহহীনদের জন্য ঘর নির্মাণ করে দেওয়া হচ্ছে। এরই অংশ হিসাবে ময়মনসিংহর ফুলপুরে প্রধানমন্ত্রীর উপহার হিসেবে সরকারি খাস জমিতে ৯৭টি পরিবারের জন্য গৃহ নির্মাণের কাজ দ্রুতগতিতে এগিয়ে চলছে। ভূমি ও গৃহহীনদের জন্য নির্মাণ করা হচ্ছে স্বপ্নের নীড়। এতে উপজেলার ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারগুলোর ভাগ্য বদলে যাবে। তারা পাবে মাথা গোজার ঠাঁই। ইতিমধ্যে এসব ঘরের নির্মাণ কাজ প্রায় শেষ পর্যায়ে। নির্মাণ কাজের শুরু থেকেই জেলা প্রশাসক মো: মিজানুর রহমানের নির্দেশনায় ঘর নির্মানে স্বচ্ছতা যাচাই-বাছাইয়ে ফুলপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার শীতেষ চন্দ্র সরকার, সহকারী কমিশনার (ভূমি) ফাতেমা তুজ জোহরা সহ প্রশাসনের বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তা, জনপ্রতিনিধি নিয়মিত পরিদর্শন করেছেন। তারা প্রকল্পের ঘর নির্মাণ কাজ স্বরেজমিনে পরিদর্শন করছেন এবং কথা বলছেন সুবিধাভোগীদের সাথে।

ফুলপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার শীতেষ চন্দ্র সরকার জানান, ‘বাংলাদেশের একজন মানুষও গৃহহীন থাকবে না’ প্রধানমন্ত্রীর এই নির্দেশনা বাস্তবায়নের লক্ষ্যে ময়মনসিংহে ফুলপুরে ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারের তালিকা করা হয়। ২০২০-২১ অর্থ বছরে মুজিব শতবর্ষে ভূমিহীন ও গৃহহীন অর্থাৎ ‘ক’ শ্রেণির গৃহ নির্মাণের জন্য প্রথম পর্যায়ে ফুলপুর উপজেলায় ৯৭টি গৃহের অনুমোদন দেওয়া হয়। আশ্রয়ণ প্রকল্পের কর্মসূচির আওতায় প্রথম পর্যায়ে ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারকে দুই শতক খাস জমি দিয়ে ঘর নির্মাণ করে দেওয়া হচ্ছে। টিনের চাল, দেয়াল ও মেঝে পাকা বাড়িগুলো সরকার নির্ধারিত একই ডিজাইনে নির্মাণ করা হচ্ছে। বাড়িতে থাকছে রান্নাঘর, সংযুক্ত টয়লেট ও ইউলিটি স্পেসসহ অন্যান্য সুবিধা। তিনি আরো জানান, নভেম্বরের শেষ সপ্তাহে নির্দেশনা পাওয়ার পরই জেলা জুড়ে খাস জমি চি‎হ্নিতকরণ ও ডিসেম্বরের শুরু থেকে গৃহ নির্মাণের কাজ শুরু হয়েছে।

উপজেলা প্রশাসনের কড়া নজরদারিতে স্বচ্ছতার সহিত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মানবতার উপহার মাথা গোজার ঠাই পাওয়ায় মানবিক প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করে স্বপ্নের নীড়’ পাওয়া কয়েকজন সুবিধাভোগি বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উপহার হিসেবে আমরা ঘর পেয়েছি। আমাদের মাথা গোঁজার ঠাঁই দিয়ে বড় উপকার করেছেন। তিনি দেশের মা। তিনি দেশের মানুষের জন্য কাজ করেন তা আবারও প্রমাণ করেছেন।