ফুলপুরে নিখোঁজের একদিন পর রাস্তার পাশ থেকে মাদ্রাসা ছাত্রের লাশ উদ্ধার

মোঃ খলিলুর রহমান, বিশেষ প্রতিনিধিঃ
ময়মনসিংহের ফুলপুরে আশি পাচঁকাহনিয়া গ্রামে নিখোঁজের একদিন পর রাস্তার পাশে ক্ষেতের হাটু পানি থেকে বুধবার সন্ধ্যায় মাহবুব আলম (১২) নামে এক মাদ্রাসা ছাত্রের লাশ উদ্ধার করেছে ফুলপুর থানা পুলিশ। সে আশি পাচকাহনিয়া আল আত্তেকুয়া বাগে জান্নাত হাফেজিয়া মাদ্রাসার হেফজ বিভাগের ছাত্র এবং হালুয়াঘাট উপজেলার আমতৈল গ্রামের নিজাম উদ্দিনের পুত্র।

এলাকাবাসী ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, ফুলপুর উপজেলার আশি পাচকাহনিয়া গ্রামের আল আত্তেকুয়া বাগে জান্নাত হাফেজিয়া মাদ্রাসার হেফজ বিভাগের ছাত্র মাহবুব আলম প্রতি দিনের মত মঙ্গলবার সন্ধ্যার আগে লজিং বাড়ি থেকে খাবার আনতে যায়। খাবার নিয়ে সে আর মাদ্রাসায় ফিরে আসেনি। সেখান থেকেই নিখোঁজ হয় মাহবুব। মাদ্রাসায় ফিরে না আসায় অনেক খোঁজাখুজির পর তার কোন সন্ধান না পেয়ে বুধবার এলাকায় মাইকে নিখোজ সংবাদ প্রচার করা হয়। খোঁজাখুজির এক পর্যায়ে স্থানীয় লোকজন বুধবার বিকাল ৫ টায় পয়ারী রাস্তার পাশে জমির হাটু পানিতে তার মৃতদেহ দেখতে পেয়ে পুলিশকে সংবাদ দেয়। ফুলপুর থানা পুলিশ সন্ধ্যায় ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে মাদ্রাসা ছাত্র মাহবুব আলমের মৃতদেহ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায় এবং বৃহস্পতিবার ময়নাতন্তের জন্য ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করেন।

মাদ্রাসা ছাত্র মাহবুব আলমের মৃত্যুকে অনেকেই রহস্যজনক বলে মনে করছে। এ মৃত্য নিয়ে পরিবার ও স্থানীয়দের মাঝে চলছে নানা আলোচনা। মাদরাসা কর্তৃপক্ষ পুলিশকে জানান, পানিতে পরে মারা যেতে পারে মাহবুব। অথচ যে স্থান থেকে তার মৃতদেহ উদ্ধার হয় সেখানে হাটু পরিমান পানি। প্রশ্ন হচ্ছে, সে কিভাবে পানিতে পড়ে মারা যায়।

ফুলপুর থানার অফিসার ইনচার্জ ইমারত হোসেন গাজী ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, এ ব্যাপারে থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা হয়েছে।