নিউজিল্যান্ডে আরও তিনদিন কোয়ারেন্টাইনে বাংলাদেশ দল

70

স্পোর্টস ডেস্ক : স্পিন বোলিং কোচ রঙ্গনা হেরাথের করোনা পজিটিভ রিপোর্ট আসার পরই তার সংস্পর্শে আসা ৯ ক্রিকেটার এবং সাপোর্ট স্টাফকে কোয়ারেন্টাইনে নেয়া হয়েছিল। অন্যরা কোয়ারেন্টাইন থেকে মুক্তি পেয়েছিলেন। সবাই মাঠেও গিয়েছিলেন। বৃষ্টির কবারণে অবশ্য করতে পারেননি অনুশীলন। তারপরও কাল তাদের উঠে যাওয়ার কথা ছিল টিম হোটেলেও। কিন্তু এরপরই এল দুঃসংবাদ। নিউজিল্যান্ডের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় থেকে নতুন করে জানানো হয়, বাংলাদেশ দলের সবাইকেই আরও তিন দিন রুম কোয়ারেন্টাইনে করতে হবে। করোনা পরীক্ষায় নেগেটিভ হলেও হেরাথের সঙ্গে একই ফ্লাইটে থাকায় ‘ইয়েলো ব্যান্ড’ পরতে হবে সবাইকেই। মাঠে গিয়ে অনুশীলন, জিমনেসিয়ামে যাওয়া—এসবও বন্ধ থাকবে।
ক্রাইস্টচার্চের আবহাওয়া কয়েকদি ধরেই বেশ ঠান্ড। যে কারণে বেশ অসুবিধা পোহাতে হচ্ছে টাইগারদের। তবে কালকের দিনটা ছিল অন্য রকম। বিজয়ের সুবর্ণজয়ন্তীতে ক্রাইস্টচার্চের হ্যাগলি পার্কে জাতীয় পতাকা হাতে জাতীয় সংগীত গান মুশফিকুর রহিম-তাসকিন আহমেদরা। উপলক্ষটাতে অন্য রকম একটা স্বস্তির আনন্দও ছিল বাংলাদেশ দলের মধ্যে। কোয়ারেন্টাইনের বিধিনিষেধের পর অবশেষে মাঠের চেহারা যে দেখতে পেলেন সবাই!

রঙ্গনা হেরাথ করোনা সংক্রমিত হওয়ার পর দলের সবার মধ্যেই ভীতি ছড়িয়ে পড়েছিল। কিন্তু সর্বশেষ করোনা পরীক্ষায় সবাই নেগেটিভ হওয়ায় স্বস্তি পেয়েছিল টিম ম্যানেজমেন্ট। মাঠে গিয়ে অনুশীলন করতে না পারলেও মুক্ত বাতাসে শ্বাস নিতে পেরেছিলেন সবাই। টিম ডিরেক্টর খালেদ মাহমুদ ক্রাইস্টচার্চ থেকে পাঠানো এক ভিডিও বার্তায় বলেছেন, ‘আজকে (গতকাল) আমাদের কিছু ভালো খবর আছে। আমরা সবাই নেগেটিভ হয়েছি (কোভিড পরীক্ষায়) এবং আমাদের অনুশীলন করার সুযোগ দেওয়া হয়েছে। আমরা অনুশীলনে গিয়েছিলাম। যদিও বৃষ্টি হচ্ছে, অনুশীলন করতে পারিনি। আমরা এখন জিম সেশন করব। রঙ্গনা হেরাথকে কোয়ারেন্টিন সেন্টারে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। বাকি সবাই ভালো ও সুস্থ আছে।’

তবে দ্রুত সময়ের মধ্যে টিম টাইগার্স পায় দুঃসংবাদ। ক্রাইস্টচার্চে বাংলাদেশ দলের সবারই কোয়ারেন্টাইনে কাটবে আরও তিন দিন।

প্রসঙ্গতঃ গত বুধবারই প্রথম করোনা পজিটিভ ধরা পড়ে বাংলাদেশ দলের শ্রীলঙ্কান স্পিন বোলিং কোচ রঙ্গনা হেরাথের। ওই সময় তার সংস্পর্শে আসা মুমিনুল হকসহ ৯ ক্রিকেটারকে আইসোলেশনে পাঠানো হয়।