চিকিৎসাসেবার উন্নয়নে সকল পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে ইনশাআল্লাহ – হাফেজ রুহুল আমিন মাদানী এম.পি

এইচ. এম জোবায়ের হোসাইন :
ত্রিশাল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আসা রোগীদের চিকিৎসাসেবার উন্নয়নে প্রয়োজনীয় সকল পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে বলে জানিয়েছেন ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রনালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি ও ময়মনসিংহ-৭ ত্রিশাল আসনের জাতীয় সংসদ সদস্য আলহাজ্ব হাফেজ মাওলানা রুহুল আমিন মাদানী।
তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে দলীয় নেতাকর্মীরা করোনা দুর্যোগে মোকাবেলায় কাজ করে যাচ্ছেন। এ সংকট কাটিয়ে উঠতে বর্তমান সরকারের প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা সর্বোচ্চ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন। এসকল কর্মকান্ডগুলো তিনি নিজেই মনিটরিং করছেন। অচিরেই এ দুর্যোগ কাটিয়ে আবারো বাংলাদেশের মানুষ স্বাভাবিক জীবন-যাপন শুরু করবে ইনশাআল্লাহ।
তিনি বুধবার বিকেলে প্রাণঘাতী নোভেল করোনা ভাইরাস পরীক্ষার নমুনা সংগ্রহের জন্য ময়মনসিংহের ত্রিশাল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ‘কোভিট-১৯ স্যাম্পল কালেকশন বুথ’ উদ্ধোধনী অনুষ্ঠানে প্রাধান অতিথির বক্তব্যে উপরোক্ত কথা বলেন।
সংসদ সদস্য রুহুল আমিন মাদানী আরো বলেন, এ দুর্যোগ মোকাবেলায় উপজেলার বিভিন্ন এলাকা থেকে আসা রোগী ও স্বাস্থ্যকর্মীদের সুবিধা ও সংক্রমণ রোধে নিজস্ব অর্থায়নে এ বুথ সেন্টারটি চালু করা হয়েছে। জনপ্রতিনিধি হিসেবে জনগণের প্রতি দায়িত্বের অংশ হিসেবে আমি এ কাজটি করেছি। চিকিৎসাসেবার উন্নয়নে প্রয়োজনীয় সকল পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবেও বলেও তিনি জানান।
সংসদ সদস্য আলহাজ্ব হাফেজ মাওলানা রুহুল আমিন মাদানী সকলের উদ্দেশ্যে বলেন, প্রাণঘাতী এ দুর্যোগ থেকে রক্ষা পেতে প্রথমে নিজে সচেতন হতে হবে আবার অন্যকেও সচেতন করতে হবে। বিশেষ প্রয়োজনে বাহিরে বের হলে স্বাস্থ্যবিধি মেনে অবশ্যই মাস্ক ব্যবহার করার আহবান জানান তিনি। করোনা উপসর্গ দেখা দিলে বা সন্দেহ হলে হাসপাতালের বুথে এসে নমুনা দিয়ে করোনা পরীক্ষা করার আহবান জানান।
এসময় উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার কর্মকর্তা ডা. মো. নজরুল ইসলাম, ত্রিশাল উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সাধারন সম্পাদক আবুল কালাম, পৌর আওয়ামীলীগের সাবেক যুগ্ম আহবায়ক মোকছিদুল আমীন মৃর্ধা, উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা নাজমুর রওশন সুমেল, এমওডিসি ডা. মনোয়ার শাদাত, উপজেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি শফিউল্লাহ মোস্তফা মনির, পৌর ছাত্রলীগের সভাপতি মনোয়ার হোসেন সরকার প্রমূখ।
উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার কর্মকর্তা ডা. মো. নজরুল ইসলাম জানান, প্রতিদিন সকাল থেকে বিকাল পর্যন্ত যে কেউ ‘কোভিট-১৯ স্যাম্পল কালেকশন বুথে’ সমুনা দিতে পারবেন।