কাস্টমস ও ভ্যাট বিভাগে চালু হচ্ছে ইউনিফর্ম

জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) কাস্টমস ও ভ্যাট বিভাগের কর্মকর্তা-কর্মচারীরা আজ (মঙ্গলবার) থেকে জলপাই রঙের সার্ভিস ইউনিফর্ম পরবেন। পরিচয় বিভ্রান্তি দূর ও বিভিন্ন সময়ে রাজস্ব কর্মকর্তাদের ওপর হামলা ও হয়রানির প্রেক্ষিতে এনবিআর এ ইউনিফর্ম চালুর সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

রাজধানীর আইডিবি ভবনে এনবিআর চেয়ারম্যান মো. মোশাররফ হোসেন ভূইয়া আজ মঙ্গলবার কাস্টমস ও ভ্যাট বিভাগের ইউনিফর্মের উদ্বোধন করবেন।

গত ৩ সেপ্টেম্বর কাস্টমস ও ভ্যাট বিভাগের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের সার্ভিস ইউনিফর্মের আওতায় আনতে বিধিমালা দিয়ে প্রজ্ঞাপন জারি করে এনবিআর। বিধিমালা অনুযায়ী দুই বিভাগের সিপাহী থেকে কমিশনারকে বাধ্যতামূলক ইউনিফর্ম পরতে হবে। গতকাল সোমবার এনবিআর এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে, নতুন ইউনিফর্ম সংক্রান্ত যাবতীয় প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে।

কাস্টমস ও ভ্যাট বিভাগে কর্মরত সিপাহী, সাব-ইন্সপেক্টর, সহকারী রাজস্ব কর্মকর্তা, রাজস্ব কর্মকর্তা, সহকারী কমিশনার, ডেপুটি কমিশনার, যুগ্ম কমিশনার, অতিরিক্ত কমিশনার, কমিশনার ও সম পদমর্যাদার অন্যান্য কর্মকর্তা ও কর্মচারীরা এই ইউনিফর্ম পরবেন।

নতুন ইউনিফর্মের রঙ হবে জলপাই রঙের শার্ট, গাঢ় জলপাই রঙের প্যান্ট। কমিশনার ও মহাপরিচালকের ক্ষেত্রে একটি শার্টে ‘সোনালি দ্বার’ এবং মধ্যবর্তী ফাঁকা অংশে তিনটি ‘গৌরব তারকা’ থাকবে। অতিরিক্ত কমিশনার ও অতিরিক্ত মহাপরিচালকের ক্ষেত্রে একটি ‘সোনালি দ্বার’ ও মধ্যবর্তী ফাঁকা অংশে দু’টি ‘গৌরব তারকা’, যুগ্ম কমিশনার ও যুগ্ম পরিচালকের ক্ষেত্রে একটি ‘সোনালি দ্বার’ ও মধ্যবর্তী ফাঁকা অংশে একটি ‘গৌরব তারকা’, উপ-কমিশনার ও উপ-পরিচালকের ক্ষেত্রে একটি ‘সোনালি দ্বার’ থাকবে।

এছাড়া সহকারী কমিশনার, সহকারী পরিচালকের ক্ষেত্রে তিনটি ‘গৌরব তারকা’, রাজস্ব কর্মকর্তার ক্ষেত্রে দু’টি ‘গৌরব তারকা’ এবং সহকারী রাজস্ব কর্মকর্তার ক্ষেত্রে একটি ‘গৌরব তারকা’ থাকবে।

সাব-ইন্সপেক্টর ও সিপাহীরা মাথায় গাঢ় জলপাই রঙের বেরেট ক্যাপ পরবেন, যার সামনে পৌনে দুই ইঞ্চি ব্যাসের দশমিক ১২৫ ইঞ্চি পুরুত্বের পিতলের চাকতির ওপর কাস্টমস ও ভ্যাট বিভাগের লোগো থাকবে।

কর্মকর্তাদের ইউনিফর্মে গর্জেট প্যাঁচ থাকবে, যা হবে সমুদ্র নীল ভিত্তির ওপর রূপালি জরির সুতা দিয়ে এমব্রয়ডারি করা। কমিশনার ও মহাপরিচালকের ক্ষেত্রে গর্জেট প্যাঁচে জলপাইপত্র সংবলিত বিপরীতমুখী লম্বালম্বি চারটি শাখা এবং অতিরিক্ত কমিশনার ও অতিরিক্ত মহাপরিচালকের ক্ষেত্রে জলপাইপত্র সংবলিত একটি শাখা থাকবে। -বাসস