কবি নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ে বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য ভাঙায় মানববন্ধন ও প্রতিবাদ

ত্রিশাল (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি :
কুষ্টিয়ায় জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নির্মাণাধীন ভাস্কর্য ভাঙায় প্রতিবাদ জানিয়েছেন কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয় ।
সোমবার ৭ ডিসেম্বর বিশ্ববিদ্যালয়ের নির্মাণাধীন বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্যের সামনে প্রতিবাদে মানববন্ধন করেছে বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন সংগঠন ও শিক্ষক, কর্মকর্তা ও কর্মচারীরা।

মানববন্ধনে উপাচার্য প্রফেসর ড. এএইচ এম মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, স্বাধীন বাংলাদেশে বঙ্গবন্ধু ভাস্কর্য ভাঙার ঘটনা মেনে নেওয়া যায় না।
যার হাত ধরে দেশে স্বাধীনতা এসেছে, যিনি বাংলাদেশের স্থপতি, তার ভাস্কর্যে আঘাত মানে বাংলাদেশের উপর আঘাত।
যারা এই কাজ করেছে তাদের রাজাকার, দেশদ্রোহী আখ্যা দিয়ে জড়িতদের খুঁজে বের করে দৃষ্টান্তম‚লক শাস্তি দেওয়ার দাবি জানাই।

এই আয়োজনে আরো অংশ নেন ব্যবসায় অনুষদের ডীন প্রফেসর ড. সুব্রত কুমার দে, ছাত্র বিষয়ক উপদেষ্টা ড. শেখ সুজন আলী, ভিসি দপ্তরের উপ পরিচালক এস এম হাফিজুর রহমান, শিক্ষক সমিতির সভাপতি নজরুল ইসলাম, সাবেক সভাপতি মোঃ শফিকুল ইসলাম, বঙ্গবন্ধু নীল দলের সভাপতি ড. সিদ্ধার্থ দে, লোকপ্রশাসন বিভাগের সহকারী অধ্যাপক সঞ্জয় কুমার মুখার্জি, নাট্যকলা বিভাগের সহকারী অধ্যাপক সৈয়দ মামুন রেজা, বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক রাকিবুল হাসান রাকিব সহ বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষক, কর্মকর্তা,কর্মচারীবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। মানববন্ধনে অংশ নেওয়া সবাই ভাস্কর্য ভাঙচুরের সঙ্গে জড়িতদের শাস্তির দাবি জানান।

উল্লেখ্য যে, কুষ্টিয়া শহরের পাঁচ রাস্তার মোড়ে পৌরসভার তত্ত¡াবধানে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের তিনটি ভাস্কর্য নির্মাণ করা হচ্ছে। এর মধ্যে একটির কাজ প্রায় শেষ হওয়ার পথে। শুক্রবার (৪ ডিসেম্বর) দিনগত রাত ২টার দিকে একদল দুর্বৃত্ত বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য ভাঙচুর করেন। এরপর থেকে ভাস্কর্য ভাঙচুরের প্রতিবাদে দেশব্যাপী বিক্ষোভ ও প্রতিবাদ মিছিল অনুষ্ঠিত হচ্ছে।