কবি নজরুল ইসলামের ১২২তম জন্মবার্ষিকীতে কবির ভাস্কর্য উদ্বোধন

ফারুক আহমেদ :
জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের ১২২তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে ত্রিশালে অবস্থিত জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় খেলার মাঠের পাশে মঙ্গলবার দুপুরে কবির ভাস্কর্য উদ্বোধন করেন জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য্য প্রফেসর ড. এএইচএম মোস্তাফিজুর রহমান।

পরে কবির ভাস্কর্যে ও বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্যে পুষ্পস্তবক অর্পনের মাধ্যমে তিন দিন ব্যাপী অনুষ্ঠানের কার্যক্রম উদ্বোধন করেন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত রেজিষ্টার কৃষিবিদ হুমায়ুন কবীর,কম্পিউটার সায়েন্সের বিভাগীয় প্রধান জান্নাতুল ফেরদৌস, বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর প্রফেসর ড. উজ্জল কুমার প্রধান, নাট্যকলা বিভাগের বিভাগীয় প্রধান আল জাবের,ছাত্র বিষয়ক উপদেষ্ঠা সুজন আলী, প্রকৌশলী হাফিজুর রহমান, ১২২তম নজরুল জয়ন্তী উদযাপন কমিটির সদস্য সচিব রাশেদুল আনাম,অতিরিক্ত পরিচালক ও পিএস টু ভাইস চ্যান্সলর এস এম হাফিজুর রহমান, মেসার্স সুতিয়া কর্পোরেশনের প্রোপ্রাইটর জি.এম নূরুল করিম স্বপন, বিশ্ববিদ্যালয় শাখার ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদক রাকিবুল হাসান প্রমূখ।
তিনদিন ব্যাপী অনুষ্ঠান মালার প্রথম দিনে ভার্চ্যূয়াল আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলা একাডেমীর সভাপতি জাতীয় অধ্যাপক ড. রফিকুল ইসলাম। জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য্য প্রফেসর ড. এএইচএম মোস্তাফিজুর রহমানের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কাজী নজরুল বিশ্ববিদ্যালয় আসানসোল ,পশ্চিমবঙ্গ ভারতের উপাচার্য প্রফেসর ড. সাধন চক্রবর্তী । আলোচক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের আইকিউএসির পরিচালক প্রফেসর ড. মুশাররাত শবনম প্রমূখ।

প্রতি বছর ২৫মে ১১ জৈষ্ঠ থেকে তিনদিনব্যাপী সাংস্কৃতিক মন্ত্রনালয় ও জেলা প্রশাসকের আয়োজনে কবি নজরুলের স্মৃতি বিজড়িত দরিরামপুর নজরুল মঞ্চে আলোচনা সভা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান,ও নজরুল মেলা অনষ্ঠিত হতো। তবে গত দুই বছর যাবত করোনাভাইরাস পরিস্থিতির কারণে কবির ১২২তম জন্ম বার্ষিকী উপলক্ষে নেই কোন আমেজ, নেই কোন মেলা বা অন্যকোন অনুষ্ঠানের আয়োজন। স্থানীয় পর্যায়ে বিভিন্ন সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠনের উদ্যোগে আয়োজন করা হয়েছে আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের।